Wednesday, April 17, 2024

দুর্দান্ত মুস্তাফিজ, আইপিএলে ক্যারিয়ার সেরা বোলিং

টিটিএন স্পোর্টস ডেস্ক :

আইপিএলের প্রথম ম্যাচেই চেন্নাইয়ের একাদশে সুযোগ পেয়েছেন মুস্তাফিজুর রহমান। সুযোগটা ভালোভাবেই কাজে লাগিয়েছেন বাংলাদেশের পেসার। বেঙ্গুলারুর টপ অর্ডার একাই গুঁড়িয়ে দেন কাটার মাস্টার। প্রথম স্পেলের দুই ওভারে ৭ রানে ৪ উইকেট শিকার করেন। ফিরতি স্পেলের ২ ওভারে ২২ রান দিয়েও উইকেট পাননি মুস্তাফিজ। টাইগার এই পেসারের দাপুটে বোলিংয়েও ৬ উইকেট হারিয়ে ১৭৩ রানে থামে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালুরু। জিততে হলে মুস্তাফিজদের টার্গেট ১৭৪ রান।

আইপিএলে নিজের পঞ্চম দলের হয়ে প্রথম ম্যাচ খেলতে নেমেই বাজিমাত করেছেন মুস্তাফিজ। নিজের প্রথম ওভারে মাত্র ৪ রান দিয়ে নিয়েছেন ২ উইকেট। তার প্রথম শিকার ফাফ ডু প্লেসি। রাচিন রবীন্দ্রের ক্যাচ বানিয়ে বেঙ্গালুরুর অধিনায়ককে ফেরান মুস্তাফিজুর রহমান। ২৩ বলে ৩৫ রান নেন মুস্তাফিজ। ওভারের তৃতীয় বলের পর তিনি উইকেট নেন ষষ্ঠ বলে। রজত পাতিদারকে উইকেটের পেছনে উইকেটকিপার মহেন্দ্র সিং ধোনির ক্যাচ বানান তিনি। ৩ বল খেলেও রানের খাতা খুলতে পারেননি তিনি।

মুস্তাফিজকে ওভার করিয়ে বোলার পরিবর্তন করেন চেন্নাইয়ের অধিনায়ক রুতুরাজ গায়কোয়াড়। পরে ইনিংসের ১২তম ওভারে কাটার মাস্টারকে আবার ফিরিয়ে আনেন। এসে বিরাট কোহলির পর তুলে নেন ক্যামেরন গ্রিনকে। ২ ওভারে ৪ উইকেট পেতে মুস্তাফিজ রান দিয়েছেন ৭টি।

এরপর ইনিংসের ১৭ ও ১৯ তম ওভারে বল করতে আসেন মুস্তাফিজ। এই দুই ওভারে উইকেট পাননি তিনি। শেষ পর্যন্ত চার ওভারে ৩০ রান দিয়ে চার উইকেট শিকার করেন মুস্তাফিজ। এর আগে একাধিকবার তিন উইকেট নেওয়ার রেকর্ড থাকলেও এবারই প্রথম চার উইকেট পেলেন মুস্তাফিজ। এতেই গড়েছেন নিজের ব্যক্তিগত সেরা আইপিএল বোলিংয়ের রেকর্ড।

২০ ওভারে শেষমেশ ৬ উইকেটে ১৭৩ রান করে থামে ব্যাঙ্গালুরু। শেষ ৮ ওভারে তারা তোলে ৯৮ রান। ৫০ বলে ৯৫ রানের জুটি গড়ে নিজেদেরকে ম্যাচে রাখেন দীনেশ কার্তিক ও অনুজ রাওয়াত।

আরও খবর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

জনপ্রিয় সংবাদ

You cannot copy content of this page