Thursday, February 29, 2024
spot_img

ওপারে আরকান আর্মি ও রোহিঙ্গা বিচ্ছিন্নতাবাদীদের মধ্যেই লড়াই চলছে- ধারনা স্থানীয়দের

আব্দুর রশিদ মানিক

মিয়ানমারের জান্তা বাহিনীর সাথে বিদ্রোহীদের মধ্যে সংঘর্ষ চলছে। গেলো দু’দিন সীমান্ত এলাকা কিছুটা শান্ত ছিলো। কিন্তু আজ মঙ্গলবার সকাল থেকে আবারও উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে মায়ানমারের সীমান্ত এলাকা।

মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারী) কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলার হোয়াইক্যং ইউনিয়নের বালুখালি এলাকার বিপরীতে মায়ানমারের অভ্যন্তর থেকে আজ সকাল থেকে মুহুর্মুহু গুলির আওয়াজ ভেসে আসছে। শোনা যাচ্ছে বিকট বিস্ফোরণের শব্দ।

এ ঘটনায় স্থানীয় মানুষদের মধ্যে ব্যাপক আতঙ্ক বিরাজ করছে বলে জানিয়েছেন স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ সদস্য সিরাজুল মোস্তফা লালু।

তিনি জানান, সকাল সাতটা থেকে মায়ানমারের সীমান্ত ঘেষা এলাকা থেকে শব্দ ভেসে আসছে। শোনা যাচ্ছে বিস্ফোরণের শব্দ। সকাল ১০ টা পর্যন্ত গোলাগুলি শব্দ শোনা গেছে।

স্থানীয়রা বলছে, এই সীমান্তের বিপরীতে মায়ানমার অংশে আগেই আরাকান আর্মি তাদের দখল প্রতিষ্ঠা করেছে। আরাকান আর্মির আক্রমণের সামনে টিকতে না পেরে মায়ানমারের বর্ডার গার্ড সদস্যরা বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছে।সেখানে বিজিপি নেই। বর্তমানে ঐ এলাকায় যে গোলাগুলি হচ্ছে তা আরাকান আর্মি ও মিয়ানমারের রোহিঙ্গা বিচ্ছিনতাবাদী গ্রুপের মধ্যে চলছে বলে তারা ধারণা করছেন।

গত কয়েক সপ্তাহ ধরে বাংলাদেশের বান্দরবন জেলার নাইক্ষ্যছড়ির ঘুমধুম ইউনিয়ন, কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলার পালংখালী ইউনিয়ন ও টেকনাফ উপজেলার হোয়াইক্ষ্যং ইউনিয়নের বিপরীতের মায়ানমার অংশে আরাকান আর্মি ও সে দেশের সরকারি বাহিনীর সাথে তুমুল লড়াই চলছে।

আরও খবর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

জনপ্রিয় সংবাদ

You cannot copy content of this page