Monday, March 4, 2024
spot_img

‘যেন অইবো ওক, আরার দেশ আরাকানত আরা যাইয়ুম’

বিশেষ প্রতিনিধি

অস্থিরতা যেন ভর করে থাকছে ঐতিহাসিক আরাকান তথা রাখাইন প্রদেশের উপর।

আরাকান আর্মির দাপটে সেখানে যখন অসহায়ত্ব বরণের দ্বারপ্রান্তে দাঁড়িয়ে মিয়ানমারের জান্তা বাহিনী তখনও পুরাতন ভুক্তভোগী- স্বদেশে ঠিকে থাকা রোহিঙ্গারাই পাচ্ছে কষ্ট।

পার্শ্ববর্তী বাংলাদেশে ২০১৭ তে আশ্রয় নেওয়া বিশ্ব স্বীকৃত সবচেয়ে নির্যাতিত এ জাতির সিংহভাগ ফিরতে মুখিয়ে আছে তাদের মাতৃভূমিতে।

যারা চান না নতুন করে তাদের আশ্রয়স্থলে ভিড়ুক স্বগোত্রীয়রা বরং প্রত্যাবর্তনের মধ্য দিয়ে একসাথে সুন্দর ভবিষ্যৎ নির্মাণই তাদের একমাত্র প্রত্যয়।

উখিয়ার ৪নং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ডি ব্লক, ৬০ উর্দ্ধ রোহিঙ্গা বৃদ্ধ শেখ আহমদ।

আশির দশকে রাখাইনের মংডু জেলার বলিবাজারের ওকাট্টা ( চেয়ারম্যান) ছিলেন তিনি, আহমদের বর্ণনায় উঠে আসে তাঁর জন্মভূমির গল্প।

তিনি জানালেন সবকিছুতেই পরিপূর্ণ ছিলো তাঁর আরকান, জাতিগত বিদ্বেষের কালো থাবায় আজ তাদের এই অনিশ্চত জীবনযাপন।

৭ বছর পেরিয়ে গেলেও প্রত্যাবাসনের কোন আলো নেই, একটু প্রদীপ জ্বলবে জ্বলবে করে নিভে যায় নতুন অস্থিরতায়।

রাখাইনের বর্তমান বৈরি পরিবেশের ভবিষ্যৎ কি হবে সে প্রশ্নের উত্তর শেখ আহমেদের কাছে না থাকলেও

তিনি বলেন, ” ন জানি হতদিন বাইচ্চুম আর। তবুও আল্লাহ চাইলে যেন অইবো ওক আরার আরাকানত আরা যাইয়ুম।”

আরও খবর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

জনপ্রিয় সংবাদ

You cannot copy content of this page