Monday, March 4, 2024
spot_img

দু’মাসের মধ্যে চট্টগ্রাম-কক্সবাজার রুটে ট্রেন চলবে- রেলমন্ত্রী

টিটিএন ডেস্ক:

আগামী দুই মাসের মধ্যে চট্টগ্রাম থেকে কক্সবাজার রুটে ট্রেন চালু হবে বলে জানিয়েছেন রেলমন্ত্রী মো. জিল্লুল হাকিম। বলেছেন, কালুরঘাট নদীর ওপর রেল সেতু চালু হতে চার থেকে পাঁচ বছর লেগে যাবে।

বুধবার (২৪ জানুয়ারি) চট্টগ্রাম সফরে গিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নে এ কথা বলেন তিনি।

মন্ত্রী হওয়ার পর বন্দরনগরীতে প্রথম সফরে গিয়ে জিল্লুর হাকিম পলোগ্রাউন্ড মাঠে রেলওয়ের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন ।

এরপর দুপুরে সিআরবির রেলওয়ে বাংলোতে রেলের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে মতবিনিময়ে অংশ নেন।

চট্টগ্রাম- কক্সবাজার পথে ট্রেন কবে চালু হবে- এই প্রশ্নে মন্ত্রী বলেন, “আগামী দুই মাসের মধ্যে চালু হবে।”

একজন সাংবাদিক প্রশ্ন রাখেন, “সেটা আন্তঃনগর নাকি কমিউটার ট্রেন?”

জবাবে রেলওয়ের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (অপারেশন) সরদার সাহাদাত আলী বলেন, “চারটা সূচি করে রেখেছি। দুই মাসের মধ্যে আমরা একটা চালু করব।

“ইঞ্জিন ও চালকের সমস্যা প্রকট। ইঞ্জিনের ব্যবস্থা যদি করে ফেলতে পারি, চট্টগ্রাম থেকে যত তেলের গাড়ি, যত খাদ্যশস্য, যত কনটেইনার, সব চট্টগ্রাম থেকে সাপোর্ট দিচ্ছে।

“এখন যদি চালু করতে হয়, কনটেইনার ট্রেন বন্ধ করে কক্সবাজার রুটে ট্রেন চালু করতে হবে। খুব শিগগিরই চালু করব।”

এরপর রেলমন্ত্রী বলেন, “আমরা যেভাবে হোক শুরু করি। যেটা অ্যাভেইলেবল হয়, সেটা আমরা শুরু করব।”

রেলের মহাপরিচালক মো. কামরুল আহসান আরেক প্রশ্নে বলেন, “এখন চাহিদার প্রেক্ষিতে আমরা দুই জোড়া (ঢাকা-কক্সবাজার রুট) আন্তঃনগর ট্রেন চালাচ্ছি। এখন আরো বেশি ট্রেন চালালে প্রকল্পের কাজ বিলম্বিত হচ্ছে।

“প্রকল্পের কাজ শেষ করেই আগামী ২ মাসের মধ্যে কক্সবাজার থেকে চট্টগ্রাম কমিউটার ট্রেন চালাব। সেই ট্রেন সবগুলো স্টেশনেই থেমে থেমে যাবে যাতে করে আপামর জনতা রেলের সুবিধা পায়। তাছাড়া চট্টগ্রাম থেকে আমরা ননস্টপ ট্রেনও চালাব।”

চট্টগ্রামে পূর্ব রেলের সদরদপ্তর সিআরবিতে রেল মন্ত্রীকে স্বাগত জানান কর্মকর্তারা

রেলের জমি অবৈধ দখলে রাখার বিষয়ে আরেক প্রশ্নে রেলমন্ত্রী বলেন, “রেলের জায়গা যে সুযোগ পায় সেই দখল করে। আমরা চেষ্টা করছি জায়গাগুলো উদ্ধার করার। দেখবেন অনেক প্রভাবশালী লোকজন দখল করে আছে। যাদের প্রয়োজন নেই, তারা দখল করে আছে।

“তাদের বলব, অন্যায় করে মানুষ স্বস্তিতে থাকতে পারে না। আপানারা অবৈধ দখল ছেড়ে দেন। না হলে রেল বাধ্য হবে দখলমুক্ত করতে।”

আরও খবর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

জনপ্রিয় সংবাদ

You cannot copy content of this page